টিলাগড়ে সিলেট জা.পা নেতা আলীর উপর সন্ত্রাসী হামলা : থাানায় অভিযোগ।

এপ্রিল ২৩ ২০২১, ১৬:৩০

Spread the love

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ- সিলেট নগরীর সন্ত্রাসী জোন হিসেবে পরিচিত শাহপরান (রহঃ) থানাধীন টিলাগড় কন্দ্রীয় জামে মসজিদের সামনে সিলেট মহানগর জাতীয় পার্টির যুগ্ম আহবায়ক সৈয়দ আহমদ আলীর উপর অতর্কিত সন্ত্রাসী হামলার ঘটনার খবর পাওয়া গেছে।

ঘটনাটি ঘটেছে গত ১৭ই এপ্রিল রাত অনুমান ১১:৩০ ঘটিকার সময়।

এই ঘটনায় মহানগর জাতীয় পার্টির যুগ্ম আহবায়ক সৈয়দ আহমদ আলী বাদী হয়ে গত ১৮ই এপ্রিল শাহপরাণ (রহঃ) থানায় শিবগঞ্জ ঠাকুরপাড়া এলাকার মৃত: আকমল মিয়ার পুত্র বাবুল মিয়া (৪২) সহ অজ্ঞাতনামা ৩/৪ জন কে অভিযুক্ত করে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগ সুত্রে জানা গেছে, আসামি বাবুল একজন চিহ্নিত সন্ত্রাসী। তার বিরুদ্ধে চুরি ও ছিনতাই সহ একাধিক মামলা মোকদ্দমা সিলেট আদালতে বিচারাধীন রয়েছে। আসামি বাবুলের সাথে উনার পরিচয় সুত্রে এই ঘটনার পূর্বে বিভিন্ন সময় ও বিভিন্ন তারিখে উনার নিকট হইতে বিভিন্ন অজুহাতে ২৮,০০০/= টাকা ধার নেয় বাবুল। ওই টাকা উনাকে ফেরত না দিতে উনার সাতে তালবাহানা শুরু করে বাবুল।
অত্র ঘটনার ৩/৪ দিন পূর্বে আসামি বাবুল তার ব্যবহৃত মোবাইল নং (০১৭১২-৩৯৯০৪২) নাম্বার হইতে উনার ব্যবহৃত মোবাইল নং (০১৭৩৬-৮৯৬৫২৬) নাম্বারে বিকাল অনুমান ০৩:০০ ঘটিকার সময় ফোক করিয়া উনার কাছে আরো ৫০,০০০/= টাকা ধার চাইলে উনি তাকে টাকা দিতে অনিচ্ছুক হওয়াতে সে উনার উপর ক্ষিপ্ত হয়ে উনি সহ উনার পিতা-মাতাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। এক পর্যায়ে তাহার দাবীকৃত টাকা না দিলে সে উনাকে দেখে নিবে বলে হুমকি প্রধান করে।

এমতাবস্থায়, ১৭ই এপ্রিল উনি মোটরসাইকেল যোগে সঙ্গীয় সাক্ষীগনকে সাথে নিয়ে রাতে শিবগঞ্জ হইতে নিজের বাসায় ফেরার পথে রাত অনুমান ১১:৩০ ঘটিকায় ঘটনাস্থল টিলাগড় কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের সামনে আসা মাত্রাই আসামি বাবুল সহ অজ্ঞাতনামা আসামির মাধ্যমে উনাকে কৌশলে ডাকিয়া চলমান মোটরসাইকেলের গতি রোধ করে এবং আসামিগন পূর্ব পরিকল্পনা মোতাবেক উনাকে ঘেরাও করে। সাথে সাথে আসামি বাবুল মিয়া “তুই টাকা দিবি না তর বাপ দিবে” বলিয়া তাহার কোমরের পেচ থেকে একটি ধারালো চাকু বাহির করিয়া উনাকে খুন করার উদ্দেশ্যে মাথা লক্ষ্য করিয়া ঘাই মারে। ঘাইটি উনার ডান পার্শ্বে পড়িয়া মারাত্মক কাটা ছিদ্রযুক্ত রক্তাক্ত জখম হয়। যাহাতে উনার ডান চোখটি নষ্ট হইয়া অঙ্গচ্যুত হওয়ার সম্ভাবনা বিদ্যমান রয়েছে। ওই সময় উনি মাটিতে পড়িয়া গেলে অজ্ঞাতনামা আসামিগন এলোপাতাড়ি কিল ঘুষি ও লাথি মারিয়া শরীরের বিভিন্ন স্থানে বেদনাদায়ক ফুলা জখম করে।

এ বিষয় শাহপরাণ (রহঃ) ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আনিসুর রহমান বলেন, এই ঘটনায় সৈয়দ আহমদ আলী বাদী হয়ে একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন তবে এই অভিযোগ সম্পর্কে  আমদের তদন্ত চলতেছে এবং তদন্ত সাপেক্ষে আইনি ব্যাবস্হা নেওয়া হবে।